ঢাকা , শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শর্ত প্রত্যাহার করলে বিএনপির সঙ্গে সংলাপ হবে: ওবায়দুল কাদের

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৩:৩৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৫ অক্টোবর ২০২৩
  • 46

সিনিয়র রিপোর্টার : আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ, তত্ত্বাবধায়ক সরকারসহ বিএনপি যে চারটি শর্ত দিয়েছে সেগুলো প্রত্যাহার করা হলে সংলাপের বিষয়টি বিবেচনা করা হবে।

আজ রোববার (১৫ অক্টোবর) সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

আগামী জাতীয় নির্বাচন অবাধ, গ্রহণযোগ্য ও অংশগ্রহণমূলক করতে মার্কিন প্রাক-নির্বাচন পর্যবেক্ষক দলের পাঁচ দফা সুপারিশের বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘পর্যবেক্ষক দলের সঙ্গে আমাদের অনেক আলোচনা হয়েছে। বিএনপি প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ, সংসদ বিলুপ্ত, নির্বাচন কমিশন বাতিল, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন চায়, তা বাস্তবায়ন অসম্ভব। প্রধানমন্ত্রী যদি মনে করেন, নির্বাচনকালীন সরকার দেয়া দরকার সেটা তার এখতিয়ার বলেও মন্তব্য করেন তিনি। এসব শর্ত রেখে সংলাপ হতে পারে না।

তিনি আরও বলেন, ‘তারা কোথা থেকে সংলাপের কথা আনলো, তা বুঝতে পারছি না। ওদের (বিদেশি) কথায় ইলেকশন হবে না। ইলেকশন আমাদের নিজস্ব বিষয়। ওরা বন্ধু রাষ্ট্র হিসেবে সুপারিশ করতেই পারে। তাই বিএনপিকে আগে শর্ত প্রত্যাহার করতে হবে। আর শর্তযুক্ত সংলাপে আওয়ামী লীগের আগ্রহ নেই। বিএনপি যদি শর্ত প্রত্যাহার করে তখন আমরা চিন্তাভাবনা করে দেখব। নির্বাচন হবে সংবিধান অনুসারে।’

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ, তত্ত্বাবধায়ক সরকারসহ বিএনপি যে চারটি শর্ত দিয়েছে তা সরকারবিরোধী আন্দোলনের অংশ। তাই আওয়ামী লীগ সরকারকে এই শর্তগুলো দিয়েছে বিএনপি।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

মিয়ানমার থেকে গুলি হলে আমরাও পাল্টা গুলি করব : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

শর্ত প্রত্যাহার করলে বিএনপির সঙ্গে সংলাপ হবে: ওবায়দুল কাদের

আপডেট সময় ০৩:৩৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৫ অক্টোবর ২০২৩

সিনিয়র রিপোর্টার : আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ, তত্ত্বাবধায়ক সরকারসহ বিএনপি যে চারটি শর্ত দিয়েছে সেগুলো প্রত্যাহার করা হলে সংলাপের বিষয়টি বিবেচনা করা হবে।

আজ রোববার (১৫ অক্টোবর) সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

আগামী জাতীয় নির্বাচন অবাধ, গ্রহণযোগ্য ও অংশগ্রহণমূলক করতে মার্কিন প্রাক-নির্বাচন পর্যবেক্ষক দলের পাঁচ দফা সুপারিশের বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘পর্যবেক্ষক দলের সঙ্গে আমাদের অনেক আলোচনা হয়েছে। বিএনপি প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ, সংসদ বিলুপ্ত, নির্বাচন কমিশন বাতিল, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন চায়, তা বাস্তবায়ন অসম্ভব। প্রধানমন্ত্রী যদি মনে করেন, নির্বাচনকালীন সরকার দেয়া দরকার সেটা তার এখতিয়ার বলেও মন্তব্য করেন তিনি। এসব শর্ত রেখে সংলাপ হতে পারে না।

তিনি আরও বলেন, ‘তারা কোথা থেকে সংলাপের কথা আনলো, তা বুঝতে পারছি না। ওদের (বিদেশি) কথায় ইলেকশন হবে না। ইলেকশন আমাদের নিজস্ব বিষয়। ওরা বন্ধু রাষ্ট্র হিসেবে সুপারিশ করতেই পারে। তাই বিএনপিকে আগে শর্ত প্রত্যাহার করতে হবে। আর শর্তযুক্ত সংলাপে আওয়ামী লীগের আগ্রহ নেই। বিএনপি যদি শর্ত প্রত্যাহার করে তখন আমরা চিন্তাভাবনা করে দেখব। নির্বাচন হবে সংবিধান অনুসারে।’

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ, তত্ত্বাবধায়ক সরকারসহ বিএনপি যে চারটি শর্ত দিয়েছে তা সরকারবিরোধী আন্দোলনের অংশ। তাই আওয়ামী লীগ সরকারকে এই শর্তগুলো দিয়েছে বিএনপি।