ঢাকা , শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ৬ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ইসরায়েল-গাজা পরিস্থিতি নিয়ে সৌদির সঙ্গে ফলপ্রসূ আলোচনা ব্লিঙ্কেনের

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৬:৪০ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৫ অক্টোবর ২০২৩
  • 106

অনলাইন ডেস্ক :  ইসরায়েল-গাজা পরিস্থিতি নিয়ে সৌদি আরবের ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে আলোচনা করেছিলেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন। এই আলোচনা ফলপ্রসূ হয়েছে বলে জানিয়েছেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী। একজন মার্কিন কর্মকর্তার বরাত দিয়ে টাইমস অব ইসরায়েল জানিয়েছে, শীর্ষ মার্কিন কূটনীতিক ভোরে মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে রিয়াদ এলাকায় রাজকীয় খামারের বাসভবনে প্রায় এক ঘণ্টা বৈঠক করেছেন। বৈঠক শেষে হোটেলে ফেরার সময় ব্লিঙ্কেনের কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেছেন, ‘খুবই ফলপ্রসূ ছিল।’

সালমানের সঙ্গে বৈঠকে হামাসের ওপর চাপের আহ্বান জানিয়েছেন ব্লিঙ্কেন। সৌদির সঙ্গে ইসরায়েলের সম্পর্ক উত্তেজনাপূর্ণ থাকলেও সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যস্থতায় তারা স্বাভাবিকরণের পথেই ছিল। স্টেট ডিপার্টমেন্টের মুখপাত্র ম্যাথিউ মিলার বলেছেন, ব্লিঙ্কেন হামাসের সন্ত্রাসী হামলা বন্ধ করার, সমস্ত জিম্মিদের মুক্তি নিশ্চিত করা এবং সংঘাত ছড়িয়ে পড়া রোধ করার বিষয়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অটল ফোকাস হাইলাইট করেছেন।’

মিলার বলেছেন, ‘দুইজন বেসামরিক নাগরিকদের সুরক্ষা এবং মধ্যপ্রাচ্য ও তার বাইরে স্থিতিশীলতা অগ্রসর করার জন্য তাদের যৌথ অঙ্গীকার নিশ্চিত করেছেন।’ ৭ অক্টোবর হামাসের আক্রমণের পর থেকে ১ হাজার ৩০০ জনের বেশি ইসরায়েলি নিহত এবং প্রায় ২০০ জনকে জিম্মি করা হয়েছে। এরপরই এই অঞ্চলে সফরে আসেন ব্লিঙ্কেন।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

লোকসভা নির্বাচন-২০২৪ : ভোটের আগে বিজেপি ছেড়ে কংগ্রেসে যোগ দিলেন কর্ণাটকের সাবেক মন্ত্রী

ইসরায়েল-গাজা পরিস্থিতি নিয়ে সৌদির সঙ্গে ফলপ্রসূ আলোচনা ব্লিঙ্কেনের

আপডেট সময় ০৬:৪০ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৫ অক্টোবর ২০২৩

অনলাইন ডেস্ক :  ইসরায়েল-গাজা পরিস্থিতি নিয়ে সৌদি আরবের ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে আলোচনা করেছিলেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেন। এই আলোচনা ফলপ্রসূ হয়েছে বলে জানিয়েছেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী। একজন মার্কিন কর্মকর্তার বরাত দিয়ে টাইমস অব ইসরায়েল জানিয়েছে, শীর্ষ মার্কিন কূটনীতিক ভোরে মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে রিয়াদ এলাকায় রাজকীয় খামারের বাসভবনে প্রায় এক ঘণ্টা বৈঠক করেছেন। বৈঠক শেষে হোটেলে ফেরার সময় ব্লিঙ্কেনের কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেছেন, ‘খুবই ফলপ্রসূ ছিল।’

সালমানের সঙ্গে বৈঠকে হামাসের ওপর চাপের আহ্বান জানিয়েছেন ব্লিঙ্কেন। সৌদির সঙ্গে ইসরায়েলের সম্পর্ক উত্তেজনাপূর্ণ থাকলেও সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যস্থতায় তারা স্বাভাবিকরণের পথেই ছিল। স্টেট ডিপার্টমেন্টের মুখপাত্র ম্যাথিউ মিলার বলেছেন, ব্লিঙ্কেন হামাসের সন্ত্রাসী হামলা বন্ধ করার, সমস্ত জিম্মিদের মুক্তি নিশ্চিত করা এবং সংঘাত ছড়িয়ে পড়া রোধ করার বিষয়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অটল ফোকাস হাইলাইট করেছেন।’

মিলার বলেছেন, ‘দুইজন বেসামরিক নাগরিকদের সুরক্ষা এবং মধ্যপ্রাচ্য ও তার বাইরে স্থিতিশীলতা অগ্রসর করার জন্য তাদের যৌথ অঙ্গীকার নিশ্চিত করেছেন।’ ৭ অক্টোবর হামাসের আক্রমণের পর থেকে ১ হাজার ৩০০ জনের বেশি ইসরায়েলি নিহত এবং প্রায় ২০০ জনকে জিম্মি করা হয়েছে। এরপরই এই অঞ্চলে সফরে আসেন ব্লিঙ্কেন।