ঢাকা , শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

স্মার্ট বাংলাদেশ গড়া সংক্রান্ত স্মারক ডাকটিকিট অবমুক্ত করলেন প্রধানমন্ত্রী

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৪:০০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ অক্টোবর ২০২৩
  • 26

অনলাইন ডেস্ক : ২০৪১ সালের মধ্যে স্মার্ট বাংলাদেশ গড়তে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার সরকারের পদক্ষেপ এবং আন্তর্জাতিক সিভিল এভিয়েশন সংগঠনে বাংলাদেশের সদস্য হওয়ার ৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষ্যে ৫০ টাকা মূল্যের একটি স্মারক ডাকটিকিট স্যুভেনির শিট, একটি ১০ টাকার স্মারক ডাকটিকিট, একটি ১০ টাকার উদ্বোধনী খাম ও একটি ৫ টাকার ডাটা কার্ড অবমুক্ত করেন।

আজ মঙ্গলবার (১৭ অক্টোবর) গণভবনে এক অনুষ্ঠানে এসব স্মারক ডাকটিকিট, উদ্বোধনী খাম, ডাটা কার্ড ও স্যুভেনির অবমুক্ত করেন প্রধানমন্ত্রী । এ উপলক্ষে তিনি বিশেষ সীলমোহর ব্যবহার করেন।

ঢাকা জিপিওর ফিলাটেলিক ব্যুরো থেকে এসব স্মারক ডাকটিকিট, উদ্বোধনী খাম, ডাটা কার্ড বিক্রি করা হবে। পরে অন্যান্য জিপিওতে ও সারাদেশে প্রধান ডাকঘরে পাওয়া যাবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার, ডাক ও টেলিযোগাযোগ সচিব আবু হেনা মোরশেদ জামান, ডাক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক তরুণ কান্তি সিকদার, বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী এম মাহবুব আলী, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব এম তোফাজ্জেল হোসেন মিয়া, বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন সচিব মো. মোকাম্মেল হোসেন ও বাংলাদেশ বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল মো. মফিদুর রহমান।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

বেইলি রোডে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শোক

স্মার্ট বাংলাদেশ গড়া সংক্রান্ত স্মারক ডাকটিকিট অবমুক্ত করলেন প্রধানমন্ত্রী

আপডেট সময় ০৪:০০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ অক্টোবর ২০২৩

অনলাইন ডেস্ক : ২০৪১ সালের মধ্যে স্মার্ট বাংলাদেশ গড়তে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার সরকারের পদক্ষেপ এবং আন্তর্জাতিক সিভিল এভিয়েশন সংগঠনে বাংলাদেশের সদস্য হওয়ার ৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষ্যে ৫০ টাকা মূল্যের একটি স্মারক ডাকটিকিট স্যুভেনির শিট, একটি ১০ টাকার স্মারক ডাকটিকিট, একটি ১০ টাকার উদ্বোধনী খাম ও একটি ৫ টাকার ডাটা কার্ড অবমুক্ত করেন।

আজ মঙ্গলবার (১৭ অক্টোবর) গণভবনে এক অনুষ্ঠানে এসব স্মারক ডাকটিকিট, উদ্বোধনী খাম, ডাটা কার্ড ও স্যুভেনির অবমুক্ত করেন প্রধানমন্ত্রী । এ উপলক্ষে তিনি বিশেষ সীলমোহর ব্যবহার করেন।

ঢাকা জিপিওর ফিলাটেলিক ব্যুরো থেকে এসব স্মারক ডাকটিকিট, উদ্বোধনী খাম, ডাটা কার্ড বিক্রি করা হবে। পরে অন্যান্য জিপিওতে ও সারাদেশে প্রধান ডাকঘরে পাওয়া যাবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার, ডাক ও টেলিযোগাযোগ সচিব আবু হেনা মোরশেদ জামান, ডাক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক তরুণ কান্তি সিকদার, বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী এম মাহবুব আলী, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব এম তোফাজ্জেল হোসেন মিয়া, বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন সচিব মো. মোকাম্মেল হোসেন ও বাংলাদেশ বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল মো. মফিদুর রহমান।