ঢাকা , শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শান্তি সমাবেশে জড়ো হচ্ছেন নেতা-কর্মীরা, চলছে সাংস্কৃতিক পরিবেশনা

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৫:৫৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২৩
  • 41

সিনিয়র রিপোর্টার: রাজধানীর বায়তুল মোকাররমের দক্ষিণ গেটের সামনে আওয়ামী লীগের শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশে যোগ দিতে দলে দলে আসছেন নেতা-কর্মীরা। ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশে এখন চলছে সাংস্কৃতিক আয়োজন। সাংস্কৃতিক আসরে ‘ঝিলমিল করে ময়ূরপঙ্খী নাও’ পরিবেশন করেন শিল্পী প্রীতি সরকার। লোকসংগীত, বাউল শিল্পী ফকির শাহাবুদ্দিন ‘জাতে বাঙালি’ ও বঙ্গবন্ধুর ওপর গান তোলেন দরাজ কণ্ঠে। দুপুর ২টার দিকে আওয়ামী লীগের মূল আনুষ্ঠানিকতা শুরু হবে।

লোকসংগীত শিল্পী প্রীতি সরকারের কণ্ঠে ‘জয় বাংলা বলিয়া’ গান দিয়ে শনিবার (২৮ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ১১টায় আওয়ামী লীগের সমাবেশের মঞ্চ সরব হয়ে ওঠে। সমাবেশে যোগ দিচ্ছে সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতীম সংগঠন ছাত্রলীগ, যুবলীগ ও স্বেচ্ছাসেবক লীগ। এ বিষয়ে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন রিয়াজ বলেছেন, আমরা আনুষ্ঠানিকভাবে দুপুর ২টায় সমাবেশ শুরু করবো।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু আহমেদ মন্নাফীর সভাপতিত্বে সমাবেশে উপস্থিত আছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য  মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আব্দুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম কামাল হোসেন, মির্জা আজম, সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল, আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক শাম্মী আহমেদ, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, উপদফতর সম্পাদক সায়েম খান, কার্যনির্বাহী সদস্য তারানা হালিম, পানি সম্পদ উপমন্ত্রী এনামুল হক শামীম, ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এসএম মান্নান কচি প্রমুখ।

এর আগে সকাল থেকে খণ্ড খণ্ড মিছিল নিয়ে স্লোগানে স্লোগানে রাজধানীর বিভিন্ন প্রান্ত থেকে বায়তুল মোকাররমের দক্ষিণ গেটে জড়ো হতে থাকেন নেতাকর্মীরা।বিভিন্ন স্থান থেকে সমাবেশস্থল ও আশপাশের এলাকায় খণ্ড খণ্ড মিছিল নিয়ে আসছেন তারা। নেতাকর্মীরা ব্যানার-প্লাকার্ড ও পতাকা নিয়ে আসছেন সমাবেশে। ঢাকা মহানগরের পাশাপাশি আশপাশের পাঁচ জেলা থেকে বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী সমাবেশে যোগ দিচ্ছেন। সন্ধ্যা পর্যন্ত তারা ঢাকায় সতর্ক অবস্থানে থাকবেন বলে জানিয়েছেন। এ সমাবেশে ঢাকা ও আশপাশের জেলাগুলো থেকে ১০ লাখ লোক আনার লক্ষ্য নিয়েছে আওয়ামী লীগ।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

মিয়ানমার থেকে গুলি হলে আমরাও পাল্টা গুলি করব : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

শান্তি সমাবেশে জড়ো হচ্ছেন নেতা-কর্মীরা, চলছে সাংস্কৃতিক পরিবেশনা

আপডেট সময় ০৫:৫৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৮ অক্টোবর ২০২৩

সিনিয়র রিপোর্টার: রাজধানীর বায়তুল মোকাররমের দক্ষিণ গেটের সামনে আওয়ামী লীগের শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশে যোগ দিতে দলে দলে আসছেন নেতা-কর্মীরা। ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশে এখন চলছে সাংস্কৃতিক আয়োজন। সাংস্কৃতিক আসরে ‘ঝিলমিল করে ময়ূরপঙ্খী নাও’ পরিবেশন করেন শিল্পী প্রীতি সরকার। লোকসংগীত, বাউল শিল্পী ফকির শাহাবুদ্দিন ‘জাতে বাঙালি’ ও বঙ্গবন্ধুর ওপর গান তোলেন দরাজ কণ্ঠে। দুপুর ২টার দিকে আওয়ামী লীগের মূল আনুষ্ঠানিকতা শুরু হবে।

লোকসংগীত শিল্পী প্রীতি সরকারের কণ্ঠে ‘জয় বাংলা বলিয়া’ গান দিয়ে শনিবার (২৮ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ১১টায় আওয়ামী লীগের সমাবেশের মঞ্চ সরব হয়ে ওঠে। সমাবেশে যোগ দিচ্ছে সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতীম সংগঠন ছাত্রলীগ, যুবলীগ ও স্বেচ্ছাসেবক লীগ। এ বিষয়ে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন রিয়াজ বলেছেন, আমরা আনুষ্ঠানিকভাবে দুপুর ২টায় সমাবেশ শুরু করবো।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু আহমেদ মন্নাফীর সভাপতিত্বে সমাবেশে উপস্থিত আছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য  মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আব্দুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম কামাল হোসেন, মির্জা আজম, সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল, আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক শাম্মী আহমেদ, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, উপদফতর সম্পাদক সায়েম খান, কার্যনির্বাহী সদস্য তারানা হালিম, পানি সম্পদ উপমন্ত্রী এনামুল হক শামীম, ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এসএম মান্নান কচি প্রমুখ।

এর আগে সকাল থেকে খণ্ড খণ্ড মিছিল নিয়ে স্লোগানে স্লোগানে রাজধানীর বিভিন্ন প্রান্ত থেকে বায়তুল মোকাররমের দক্ষিণ গেটে জড়ো হতে থাকেন নেতাকর্মীরা।বিভিন্ন স্থান থেকে সমাবেশস্থল ও আশপাশের এলাকায় খণ্ড খণ্ড মিছিল নিয়ে আসছেন তারা। নেতাকর্মীরা ব্যানার-প্লাকার্ড ও পতাকা নিয়ে আসছেন সমাবেশে। ঢাকা মহানগরের পাশাপাশি আশপাশের পাঁচ জেলা থেকে বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী সমাবেশে যোগ দিচ্ছেন। সন্ধ্যা পর্যন্ত তারা ঢাকায় সতর্ক অবস্থানে থাকবেন বলে জানিয়েছেন। এ সমাবেশে ঢাকা ও আশপাশের জেলাগুলো থেকে ১০ লাখ লোক আনার লক্ষ্য নিয়েছে আওয়ামী লীগ।