ঢাকা , শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিএনপিবিহীন নির্বাচন চায় না আওয়ামী লীগ : ওবায়দুল কাদের

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৪:৪৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ৩০ অক্টোবর ২০২৩
  • 38

সিনিয়র রিপোর্টার : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, আমরা বিএনপিবিহীন নির্বাচন চাই না। নিয়ম অনুযায়ী নির্বাচন হবে। তবে কে এল, আর কে এল না, তার জন্য নির্বাচন থেমে থাকবে না। বিএনপি নির্বাচন বানচাল করতে চায়। যারা নির্বাচন চায়, তারা কখনো সংঘাতের পথ বেছে নিতে পারে না। 

সোমবার (৩০ অক্টোবর) বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক যৌথ সভায় তিনি এ কথা বলেন।

বিএনপির অবরোধের নেতৃত্ব কে দেবে উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, তাদের (বিএনপি) নেতা-কর্মীরা সমাবেশ থেকে ফিরে গিয়ে বলছেন, এই দল ভুয়া। তাই তাদের নেতা-কর্মীরা দল ছেড়ে চলে যাচ্ছেন। বিএনপির নেতারা বলছেন, তারেক রহমান ভুয়া, ফখরুল ভুয়া। কেউ কেউ কান ধরে দলে ছাড়ার কথা বলছেন। বিএনপির সবকিছু ভুয়া।

পাল্টাপাল্টি সমাবেশের বিষয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপি বিদেশিদের কাছে বলছে, তারা সমাবেশ করলে আওয়ামী লীগ পাল্টা সমাবেশ করে। বিএনপি তো নাশকতা করে কিন্তু আওয়ামী লীগ পাল্টা সমাবেশ করে না, শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশ করে। পুলিশের একজন সদস্যকে কীভাবে হত্যা করেছে। কত ভয়ংকর তারা। এটাই হলো তাদের আসল চেহারা। বিএনপি সাংবাদিকদের ওপর হামলা করছে, কিন্তু এটা কেন? সাংবাদিক যা দেখেন, তা লেখেন। যারাই নিরপেক্ষ সংবাদ লেখেন, তারাই বিএনপির চোখে অপরাধী।

নেতা-কর্মীদের ধৈর্য না হারানোর আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশে সবাই শান্তভাবে ছিলেন। ২৮ তারিখে রাত ১০টার পরে মাঠে ছিলেন। সেদিন আমরা বিজয়ীর মতো পরিবেশেই ছিলাম। সামনে নির্বাচন, আমরা বিজয়ের দিকে যাচ্ছি।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় রেমাল : সতর্কতায় উপকূলে মাইকিং করেছে কোস্ট গার্ডের সদস্যরা

বিএনপিবিহীন নির্বাচন চায় না আওয়ামী লীগ : ওবায়দুল কাদের

আপডেট সময় ০৪:৪৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ৩০ অক্টোবর ২০২৩

সিনিয়র রিপোর্টার : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, আমরা বিএনপিবিহীন নির্বাচন চাই না। নিয়ম অনুযায়ী নির্বাচন হবে। তবে কে এল, আর কে এল না, তার জন্য নির্বাচন থেমে থাকবে না। বিএনপি নির্বাচন বানচাল করতে চায়। যারা নির্বাচন চায়, তারা কখনো সংঘাতের পথ বেছে নিতে পারে না। 

সোমবার (৩০ অক্টোবর) বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক যৌথ সভায় তিনি এ কথা বলেন।

বিএনপির অবরোধের নেতৃত্ব কে দেবে উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, তাদের (বিএনপি) নেতা-কর্মীরা সমাবেশ থেকে ফিরে গিয়ে বলছেন, এই দল ভুয়া। তাই তাদের নেতা-কর্মীরা দল ছেড়ে চলে যাচ্ছেন। বিএনপির নেতারা বলছেন, তারেক রহমান ভুয়া, ফখরুল ভুয়া। কেউ কেউ কান ধরে দলে ছাড়ার কথা বলছেন। বিএনপির সবকিছু ভুয়া।

পাল্টাপাল্টি সমাবেশের বিষয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপি বিদেশিদের কাছে বলছে, তারা সমাবেশ করলে আওয়ামী লীগ পাল্টা সমাবেশ করে। বিএনপি তো নাশকতা করে কিন্তু আওয়ামী লীগ পাল্টা সমাবেশ করে না, শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশ করে। পুলিশের একজন সদস্যকে কীভাবে হত্যা করেছে। কত ভয়ংকর তারা। এটাই হলো তাদের আসল চেহারা। বিএনপি সাংবাদিকদের ওপর হামলা করছে, কিন্তু এটা কেন? সাংবাদিক যা দেখেন, তা লেখেন। যারাই নিরপেক্ষ সংবাদ লেখেন, তারাই বিএনপির চোখে অপরাধী।

নেতা-কর্মীদের ধৈর্য না হারানোর আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশে সবাই শান্তভাবে ছিলেন। ২৮ তারিখে রাত ১০টার পরে মাঠে ছিলেন। সেদিন আমরা বিজয়ীর মতো পরিবেশেই ছিলাম। সামনে নির্বাচন, আমরা বিজয়ের দিকে যাচ্ছি।