ঢাকা , সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ফোর্বসের তালিকায় বিশ্বের শীর্ষ ক্ষমতাধর নারী উরসুলা, আছেন শেখ হাসিনাও

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৩:৩৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ৬ ডিসেম্বর ২০২৩
  • 34

অনলাইন ডেস্ক : চলতি বছরে বিশ্বের ১০০ জন ক্ষমতাধর নারীর একটি তালিকা প্রকাশ করেছে মার্কিন প্রভাবশালী সাময়িকী ফোর্বস। এ বছরের তালিকায় সবচেয়ে প্রভাবশালী অর্থাৎ শীর্ষে আছেন ইউরোপীয় কমিশনের (ইসি) প্রেসিডেন্ট উরসুলা ফন ডার লিয়েন। তালিকায় উঠে এসেছে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নামও। তালিকায় তিনি আছেন ৪৬তম অবস্থানে। গত বছর এই তালিকায় শেখ হাসিনার অবস্থান ছিল ৪২তম।

ফোর্বস বলছে, তালিকায় যুগান্তকারী নবাগত এবং প্রতিষ্ঠিত ব্যক্তিত্ব উভয়ই রয়েছেন, যা নারীদের বৈশ্বিক প্রভাবের ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি নিদর্শন করে। এই তালিকা নারীর অগ্রগতি তুলে ধরার পাশাপাশি তাদের ক্ষমতার অবস্থা সম্পর্কে সমালোচনামূলক প্রশ্নও উত্থাপন করেছে।

তালিকায় ইউরোপিয়ান সেন্ট্রাল ব্যাংকের প্রেসিডেন্ট ক্রিস্টিন লাগার্ড, যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস ও ইতালির প্রধানমন্ত্রী জর্জিয়া মেলোনি যথাক্রমে দ্বিতীয়, তৃতীয় ও চতুর্থ অবস্থানে রয়েছেন। এছাড়া তালিকার পঞ্চম স্থানে রয়েছেন জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী ও অভিনেত্রী টেইলর সুইফট।

এই তালিকা ছয়টি ক্যাটাগরিতে বিভক্ত করা হয়েছে- মিডিয়া অ্যান্ড এন্টারটেইনমেন্ট, পলিটিক্স অ্যান্ড পলিসি, ফাইন্যান্স (অর্থসংস্থান), বিজনেস (ব্যবসা), ফিলানথ্রোপি (জনহিতৈষী) ও টেক (প্রযুক্তি)।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

বিমানবাহিনীর নতুন প্রধান হাসান মাহমুদ খাঁনকে  অভিনন্দন জানিয়েছেন খাঁন আকতারুজ্জামান

ফোর্বসের তালিকায় বিশ্বের শীর্ষ ক্ষমতাধর নারী উরসুলা, আছেন শেখ হাসিনাও

আপডেট সময় ০৩:৩৪ অপরাহ্ন, বুধবার, ৬ ডিসেম্বর ২০২৩

অনলাইন ডেস্ক : চলতি বছরে বিশ্বের ১০০ জন ক্ষমতাধর নারীর একটি তালিকা প্রকাশ করেছে মার্কিন প্রভাবশালী সাময়িকী ফোর্বস। এ বছরের তালিকায় সবচেয়ে প্রভাবশালী অর্থাৎ শীর্ষে আছেন ইউরোপীয় কমিশনের (ইসি) প্রেসিডেন্ট উরসুলা ফন ডার লিয়েন। তালিকায় উঠে এসেছে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নামও। তালিকায় তিনি আছেন ৪৬তম অবস্থানে। গত বছর এই তালিকায় শেখ হাসিনার অবস্থান ছিল ৪২তম।

ফোর্বস বলছে, তালিকায় যুগান্তকারী নবাগত এবং প্রতিষ্ঠিত ব্যক্তিত্ব উভয়ই রয়েছেন, যা নারীদের বৈশ্বিক প্রভাবের ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি নিদর্শন করে। এই তালিকা নারীর অগ্রগতি তুলে ধরার পাশাপাশি তাদের ক্ষমতার অবস্থা সম্পর্কে সমালোচনামূলক প্রশ্নও উত্থাপন করেছে।

তালিকায় ইউরোপিয়ান সেন্ট্রাল ব্যাংকের প্রেসিডেন্ট ক্রিস্টিন লাগার্ড, যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস ও ইতালির প্রধানমন্ত্রী জর্জিয়া মেলোনি যথাক্রমে দ্বিতীয়, তৃতীয় ও চতুর্থ অবস্থানে রয়েছেন। এছাড়া তালিকার পঞ্চম স্থানে রয়েছেন জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী ও অভিনেত্রী টেইলর সুইফট।

এই তালিকা ছয়টি ক্যাটাগরিতে বিভক্ত করা হয়েছে- মিডিয়া অ্যান্ড এন্টারটেইনমেন্ট, পলিটিক্স অ্যান্ড পলিসি, ফাইন্যান্স (অর্থসংস্থান), বিজনেস (ব্যবসা), ফিলানথ্রোপি (জনহিতৈষী) ও টেক (প্রযুক্তি)।