ঢাকা , মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ২ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বাংলাদেশে আরব বসন্তের সম্ভাবনা দেখছেন না পররাষ্ট্রমন্ত্রী

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৫:২৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০২৩
  • 20

অনলাইন ডেস্ক : বাংলাদেশে আরব বসন্তের সম্ভাবনা নিয়ে রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্রের বক্তব্য নাকচ করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন বলেছেন, ‘আমার তো নিশ্চয় মনে হয় না এ ধরনের কোনো সুযোগ আছে। রাশিয়া কী বলেছে, এটা আমাদের ইস্যু নয়। এটা ওদের জিজ্ঞাসা করেন। অনেকে অনেক ধরনের কথা বলবে কিন্তু আমরা এটা নিয়ে কিছু বলতে চাই না। আমরা সার্বভৌম, আমাদের ভারসাম্য পররাষ্ট্রনীতি।’

রবিবার (১৭ ‍ডিসেম্বর) রাজধানীর ফরেন সার্ভিস একাডেমিতে ‘৫২ বছরে বাংলাদেশের অর্জন’ শীর্ষক সেমিনার শেষে তিনি সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে এসব কথা বলেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা একটা গণতান্ত্রিক দেশ। শেখ হাসিনার কারণে আমাদের দেশে গণতন্ত্র সমুন্নত আছে। আর আমরা ৭ জানুয়ারি নির্বাচন করব। আমরা গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় সেটা করব। আমরা খুব ভালোভাবে চলছি।’

সবার সঙ্গে বন্ধুত্ব, কারও সঙ্গে বৈরিতা নয়’- এর পরিপ্রেক্ষিতে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রনীতি মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘কে কী বলল, না বলল, এটা তাদের মাথাব্যথা। আমরা পরাশক্তিগুলোর টানাটানিতে পা দিতে চাই না। আমাদের ভারসাম্য কূটনীতি নিয়ে আমরা চলতে চাই।’

গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ার কারণে বাংলাদেশের উন্নয়ন সম্ভব হয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, উন্নয়নের লক্ষ্য নিয়ে আমরা সামনে এগিয়ে যেতে চায়, অন্য কিছু দরকার নাই।

প্রসঙ্গত- শুক্রবার (১৫ ডিসেম্বর) রুশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের আনুষ্ঠানিক মুখপাত্র মারিয়া জাখারোভা এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘জনগণের ভোটের ফলাফল যুক্তরাষ্ট্রের কাছে সন্তোষজনক মনে না হলে ‘আরব বসন্তের’ মতো করে বাংলাদেশকে আরও অস্থিতিশীল করার চেষ্টা করা হতে পারে।’

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন : ‘শুভ নববর্ষ’ ১৪৩১ : নতুন বছর মুক্তিযুদ্ধবিরোধী অপশক্তির বিরুদ্ধে লড়াইয়ে প্রেরণা জোগাবে

বাংলাদেশে আরব বসন্তের সম্ভাবনা দেখছেন না পররাষ্ট্রমন্ত্রী

আপডেট সময় ০৫:২৪ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০২৩

অনলাইন ডেস্ক : বাংলাদেশে আরব বসন্তের সম্ভাবনা নিয়ে রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্রের বক্তব্য নাকচ করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন বলেছেন, ‘আমার তো নিশ্চয় মনে হয় না এ ধরনের কোনো সুযোগ আছে। রাশিয়া কী বলেছে, এটা আমাদের ইস্যু নয়। এটা ওদের জিজ্ঞাসা করেন। অনেকে অনেক ধরনের কথা বলবে কিন্তু আমরা এটা নিয়ে কিছু বলতে চাই না। আমরা সার্বভৌম, আমাদের ভারসাম্য পররাষ্ট্রনীতি।’

রবিবার (১৭ ‍ডিসেম্বর) রাজধানীর ফরেন সার্ভিস একাডেমিতে ‘৫২ বছরে বাংলাদেশের অর্জন’ শীর্ষক সেমিনার শেষে তিনি সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে এসব কথা বলেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা একটা গণতান্ত্রিক দেশ। শেখ হাসিনার কারণে আমাদের দেশে গণতন্ত্র সমুন্নত আছে। আর আমরা ৭ জানুয়ারি নির্বাচন করব। আমরা গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় সেটা করব। আমরা খুব ভালোভাবে চলছি।’

সবার সঙ্গে বন্ধুত্ব, কারও সঙ্গে বৈরিতা নয়’- এর পরিপ্রেক্ষিতে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রনীতি মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘কে কী বলল, না বলল, এটা তাদের মাথাব্যথা। আমরা পরাশক্তিগুলোর টানাটানিতে পা দিতে চাই না। আমাদের ভারসাম্য কূটনীতি নিয়ে আমরা চলতে চাই।’

গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়ার কারণে বাংলাদেশের উন্নয়ন সম্ভব হয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, উন্নয়নের লক্ষ্য নিয়ে আমরা সামনে এগিয়ে যেতে চায়, অন্য কিছু দরকার নাই।

প্রসঙ্গত- শুক্রবার (১৫ ডিসেম্বর) রুশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের আনুষ্ঠানিক মুখপাত্র মারিয়া জাখারোভা এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘জনগণের ভোটের ফলাফল যুক্তরাষ্ট্রের কাছে সন্তোষজনক মনে না হলে ‘আরব বসন্তের’ মতো করে বাংলাদেশকে আরও অস্থিতিশীল করার চেষ্টা করা হতে পারে।’