ঢাকা , সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আ.লীগের নির্বাচনি ইশতেহারে দুর্নীতিবাজদের অর্থ-সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার প্রতিশ্রুতি শেখ হাসিনার

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৫:৪২ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৭ ডিসেম্বর ২০২৩
  • 44

সিনিয়র রিপোর্টার : দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচনে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করতে পারলে দুর্নীতিবাজদের বিচারব্যবস্থার মাধ্যমে শাস্তি এবং তাদের অবৈধ অর্থ-সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হবে ইশতেহারে এমন প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন দলের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বুধবার (২৭ ডিসেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে রাজধানীর প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলের গ্র্যান্ড বলরুমে নির্বাচনি ইশতেহার ঘোষণার সময় তিনি এ প্রতিশ্রতি দেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, রাষ্ট্র ও সমাজের সকল স্তরে ঘুষ-দুর্নীতি উচ্ছেদ, অনুপার্জিত আয় রোধ, ঋণ-কর-বিল খেলাপি ও দুর্নীতিবাজদের বিচার ব্যবস্থার মাধ্যমে শাস্তি প্রদান এবং তাদের অবৈধ অর্থ ও সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হবে।

শেখ হাসিনা বলেন, আমদানি ও রপ্তানি বাণিজ্যে ভারসাম্য রক্ষা করা হবে। ফলে বৈদেশিক মুদ্রা সরবরাহে অনিশ্চয়তা লাঘব হবে। খেলাপি ঋণ আদায়ে কঠোর আইন প্রয়োগ এবং এ ক্ষেত্রে ব্যাংক যাতে বিধি নির্ধারিত সঞ্চিতি রাখে, তা নিশ্চিত করা হবে। আওয়ামী লীগ অর্থনৈতিক উন্নয়নে বেসরকারি খাতের গুরুত্ব অব্যাহত রাখবে। যুক্তিসংগত ক্ষেত্রে সরকারি ও বেসরকারি খাতের যৌথ বিনিয়োগের সুযোগ ব্যবহার করবে।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

আমার বাসায় পিয়ন ৪০০ কোটি টাকার মালিক, তাকেও ধরা হয়েছে : প্রধানমন্ত্রী

আ.লীগের নির্বাচনি ইশতেহারে দুর্নীতিবাজদের অর্থ-সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার প্রতিশ্রুতি শেখ হাসিনার

আপডেট সময় ০৫:৪২ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৭ ডিসেম্বর ২০২৩

সিনিয়র রিপোর্টার : দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচনে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করতে পারলে দুর্নীতিবাজদের বিচারব্যবস্থার মাধ্যমে শাস্তি এবং তাদের অবৈধ অর্থ-সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হবে ইশতেহারে এমন প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন দলের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বুধবার (২৭ ডিসেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে রাজধানীর প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলের গ্র্যান্ড বলরুমে নির্বাচনি ইশতেহার ঘোষণার সময় তিনি এ প্রতিশ্রতি দেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, রাষ্ট্র ও সমাজের সকল স্তরে ঘুষ-দুর্নীতি উচ্ছেদ, অনুপার্জিত আয় রোধ, ঋণ-কর-বিল খেলাপি ও দুর্নীতিবাজদের বিচার ব্যবস্থার মাধ্যমে শাস্তি প্রদান এবং তাদের অবৈধ অর্থ ও সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হবে।

শেখ হাসিনা বলেন, আমদানি ও রপ্তানি বাণিজ্যে ভারসাম্য রক্ষা করা হবে। ফলে বৈদেশিক মুদ্রা সরবরাহে অনিশ্চয়তা লাঘব হবে। খেলাপি ঋণ আদায়ে কঠোর আইন প্রয়োগ এবং এ ক্ষেত্রে ব্যাংক যাতে বিধি নির্ধারিত সঞ্চিতি রাখে, তা নিশ্চিত করা হবে। আওয়ামী লীগ অর্থনৈতিক উন্নয়নে বেসরকারি খাতের গুরুত্ব অব্যাহত রাখবে। যুক্তিসংগত ক্ষেত্রে সরকারি ও বেসরকারি খাতের যৌথ বিনিয়োগের সুযোগ ব্যবহার করবে।