ঢাকা , বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আগামী শুক্র ও শনিবার ব্যাংক খোলা রাখার নির্দেশ 

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৪:২০ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ জানুয়ারী ২০২৪
  • 27

সিনিয়র রিপোর্টার : আগামী ৭ জানুয়ারি দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগের দুই দিন শুক্র ও শনিবার (৫ ও ৬ জানুয়ারি) তফসিলি ব্যাংক খোলা রাখার নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। ভোটগ্রহণ কর্মকর্তাদের নির্বাচনী ব্যয় পরিশোধের সুবিধার্থে এ দুদিন সীমিত জনবলে ঢাকা ও চট্টগ্রামসহ অন্যান্য মহানগরী, জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের শাখা খোলা রাখতে বলা হয়েছে।

বুধবার (৩ জানুয়ারি) নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের উপসচিব আতিয়ার রহমানের স্বাক্ষরিত এ সংক্রান্ত একটি চিঠি বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরকে পাঠানো হয়।

চিঠিতে বলা হয়েছে, ভোটগ্রহণের আগের ২দিন (শুক্রবার ও শনিবার) সাপ্তাহিক ছুটির উল্লিখিত দিনে নির্বাচন কমিশন সচিবালয়, রিটার্নিং অফিসার, সহকারী রিটার্নিং অফিসার ও নির্বাচন সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন কর্মকর্তা/কর্তৃপক্ষের নগদ অর্থ উত্তোলন ও আর্থিক লেনদেনের প্রয়োজন হবে। ভোটকেন্দ্র ও ভোটগ্রহণকারী কর্মকর্তা তথা নির্বাচন সংক্রান্ত ব্যয় নির্বাহের লক্ষ্যে টাকা লেনদেন করতে হবে তাদের। ফলে সীমিত সংখ্যক জনবল দিয়ে ঢাকা, চট্টগ্রাম ও অন্যান্য মহানগরীসহ জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের তফসিলি ব্যাংক খোলা রাখার জন্য নির্বাচন কমিশন সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

যেসব ব্যাংক কর্মকর্তা/কর্মচারীকে ভোটগ্রহণকারী কর্মকর্তা বা নির্বাচনি দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে তাদের উল্লিখিত ব্যাংকিং কাজে নিয়োজিত না করার জন্যও নির্বাচন কমিশন সিদ্ধান্ত দিয়েছে। ওই সিদ্ধান্ত অনুসারে সংশ্লিষ্ট তপশিলি ব্যাংক খোলা রাখার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দেওয়ার অনুরোধ করা হলো।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

দাওয়াত না পেয়ে বিয়ে বাড়িতে হামলা : অভিযুক্ত মেম্বার জেলহাজতে

আগামী শুক্র ও শনিবার ব্যাংক খোলা রাখার নির্দেশ 

আপডেট সময় ০৪:২০ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ জানুয়ারী ২০২৪

সিনিয়র রিপোর্টার : আগামী ৭ জানুয়ারি দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগের দুই দিন শুক্র ও শনিবার (৫ ও ৬ জানুয়ারি) তফসিলি ব্যাংক খোলা রাখার নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। ভোটগ্রহণ কর্মকর্তাদের নির্বাচনী ব্যয় পরিশোধের সুবিধার্থে এ দুদিন সীমিত জনবলে ঢাকা ও চট্টগ্রামসহ অন্যান্য মহানগরী, জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের শাখা খোলা রাখতে বলা হয়েছে।

বুধবার (৩ জানুয়ারি) নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের উপসচিব আতিয়ার রহমানের স্বাক্ষরিত এ সংক্রান্ত একটি চিঠি বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরকে পাঠানো হয়।

চিঠিতে বলা হয়েছে, ভোটগ্রহণের আগের ২দিন (শুক্রবার ও শনিবার) সাপ্তাহিক ছুটির উল্লিখিত দিনে নির্বাচন কমিশন সচিবালয়, রিটার্নিং অফিসার, সহকারী রিটার্নিং অফিসার ও নির্বাচন সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন কর্মকর্তা/কর্তৃপক্ষের নগদ অর্থ উত্তোলন ও আর্থিক লেনদেনের প্রয়োজন হবে। ভোটকেন্দ্র ও ভোটগ্রহণকারী কর্মকর্তা তথা নির্বাচন সংক্রান্ত ব্যয় নির্বাহের লক্ষ্যে টাকা লেনদেন করতে হবে তাদের। ফলে সীমিত সংখ্যক জনবল দিয়ে ঢাকা, চট্টগ্রাম ও অন্যান্য মহানগরীসহ জেলা ও উপজেলা পর্যায়ের তফসিলি ব্যাংক খোলা রাখার জন্য নির্বাচন কমিশন সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

যেসব ব্যাংক কর্মকর্তা/কর্মচারীকে ভোটগ্রহণকারী কর্মকর্তা বা নির্বাচনি দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে তাদের উল্লিখিত ব্যাংকিং কাজে নিয়োজিত না করার জন্যও নির্বাচন কমিশন সিদ্ধান্ত দিয়েছে। ওই সিদ্ধান্ত অনুসারে সংশ্লিষ্ট তপশিলি ব্যাংক খোলা রাখার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দেওয়ার অনুরোধ করা হলো।