ঢাকা , রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ১ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বাগেরহাট এর ফেইথ ইন্টারন্যাশনাল ক্যাডেট একাডেমির উদ্বোধনী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৮:০২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ জানুয়ারী ২০২৪
  • 114

অনলাইন ডেস্ক :  গত বুধবার ৩ জানুয়ারি ২০২৪ ফেইথ ইন্টারন্যাশনাল ক্যাডেট একাডেমি, সোনাতলা, বাগেরহাট এর উদ্বোধনী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও সমাজসেবক অধ্যাপক মোজাফফর হোসেন।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ জনাব খসরুল আলম ও জনাব ডাঃ ফরিদুদ্দিন, অবসরপ্রাপ্ত তথ্য কর্মকর্তা, বাগেরহাট। সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জনাব খান আবু বকর সিদ্দিক ৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর বাগেরহাট পৌরসভা। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ডঃ কাজী আসাদুজ্জামান ,  অবসরপ্রাপ্ত যুগ্ম সচিব,  গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার। প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, আমাদের বাগেরহাট গর্বিত হলো এমন একটি সুন্দর প্রতিষ্ঠানের জন্ম হয়ে। এ প্রতিষ্ঠানটির চুম্বক দিক হলো এখানে সাধারণ শিক্ষার পাশাপাশি কুরআন শিক্ষার সুযোগ রয়েছে। যার ফলে আমাদের আগামি প্রজন্ম আদর্শ মানুস হিসেবে গড়ে উঠবে সাথে সাথে ব্যাক্তিটি একজন ইন্টারন্যাশনাল ইসলামিক স্কলার্স হিসেবে গড়ে উঠবে। তিনি তার বক্তব্যের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানটির শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন। প্রিন্সিপাল তার বক্তব্যে প্রতিষ্ঠানের পরিচিতি তুলে ধরেন। আমাদের প্রতিষ্ঠানটি একটি এরাবিক এবং ইংলিশ ভার্সন প্রতিষ্ঠান। তিনি বলেন এই প্রতিষ্ঠানটি একটি ভিন্ন ধরনের প্রতিষ্ঠান। আমাদের প্রতিষ্ঠানে একটি বাচ্চাকে এসএসসি পর্যন্ত পড়ানো হবে এবং এর সাথে তাকে আন্তর্জাতিক মানের কোরআনের হাফেজ হিসেবে তৈরি করা হবে।

এভাবে তিনি প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম ও পরিকল্পনা সমূহ তুলে ধরেন। এ প্রতিষ্ঠানের আরেকটি শাখা রয়েছে বাগেরহাট খান জাহান আলী রহ. দরগাহ এর পাশে। সেখানকার শিক্ষার্থিরা দ্বিতিয় পর্বে আয়োজিত সাংস্কৃতিকি অনুষ্ঠানে তাদের ইংলিশ লেকচার, এরাবিক লেকচার এবং মিশ্র সংগীত পরিবেশন করে। এ সব দেখে অতিথি ও দর্শকবৃন্দ অভিভুত হন। অনুষ্ঠানে আনুমানিক চারশত জন শ্রোতা ও দর্শক উপস্থিত হন। সভাপতি তার জ্ঞানগর্ভ আলোচনায় বলেন, আমরা এ প্রতিষ্ঠানটিকে বাগেরহাটের মধ্যে একটি অন্যতম প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তুলতে চাই। আর এ প্রত্যাশা পুরণে আপনাদের সহযোগিতা একান্তই কাম্য। পরিশেষে দোয়ার মাধ্যমে অনুষ্ঠান সমাপ্ত হয়।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

শনিবার  ডিএমপি’র  কমিশনার হাবিবুর রহমান জানিয়েছেন : পহেলা বৈশাখে জঙ্গি হামলার আশঙ্কা নেই

বাগেরহাট এর ফেইথ ইন্টারন্যাশনাল ক্যাডেট একাডেমির উদ্বোধনী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত

আপডেট সময় ০৮:০২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৪ জানুয়ারী ২০২৪

অনলাইন ডেস্ক :  গত বুধবার ৩ জানুয়ারি ২০২৪ ফেইথ ইন্টারন্যাশনাল ক্যাডেট একাডেমি, সোনাতলা, বাগেরহাট এর উদ্বোধনী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও সমাজসেবক অধ্যাপক মোজাফফর হোসেন।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ জনাব খসরুল আলম ও জনাব ডাঃ ফরিদুদ্দিন, অবসরপ্রাপ্ত তথ্য কর্মকর্তা, বাগেরহাট। সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জনাব খান আবু বকর সিদ্দিক ৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর বাগেরহাট পৌরসভা। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ডঃ কাজী আসাদুজ্জামান ,  অবসরপ্রাপ্ত যুগ্ম সচিব,  গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার। প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, আমাদের বাগেরহাট গর্বিত হলো এমন একটি সুন্দর প্রতিষ্ঠানের জন্ম হয়ে। এ প্রতিষ্ঠানটির চুম্বক দিক হলো এখানে সাধারণ শিক্ষার পাশাপাশি কুরআন শিক্ষার সুযোগ রয়েছে। যার ফলে আমাদের আগামি প্রজন্ম আদর্শ মানুস হিসেবে গড়ে উঠবে সাথে সাথে ব্যাক্তিটি একজন ইন্টারন্যাশনাল ইসলামিক স্কলার্স হিসেবে গড়ে উঠবে। তিনি তার বক্তব্যের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানটির শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন। প্রিন্সিপাল তার বক্তব্যে প্রতিষ্ঠানের পরিচিতি তুলে ধরেন। আমাদের প্রতিষ্ঠানটি একটি এরাবিক এবং ইংলিশ ভার্সন প্রতিষ্ঠান। তিনি বলেন এই প্রতিষ্ঠানটি একটি ভিন্ন ধরনের প্রতিষ্ঠান। আমাদের প্রতিষ্ঠানে একটি বাচ্চাকে এসএসসি পর্যন্ত পড়ানো হবে এবং এর সাথে তাকে আন্তর্জাতিক মানের কোরআনের হাফেজ হিসেবে তৈরি করা হবে।

এভাবে তিনি প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম ও পরিকল্পনা সমূহ তুলে ধরেন। এ প্রতিষ্ঠানের আরেকটি শাখা রয়েছে বাগেরহাট খান জাহান আলী রহ. দরগাহ এর পাশে। সেখানকার শিক্ষার্থিরা দ্বিতিয় পর্বে আয়োজিত সাংস্কৃতিকি অনুষ্ঠানে তাদের ইংলিশ লেকচার, এরাবিক লেকচার এবং মিশ্র সংগীত পরিবেশন করে। এ সব দেখে অতিথি ও দর্শকবৃন্দ অভিভুত হন। অনুষ্ঠানে আনুমানিক চারশত জন শ্রোতা ও দর্শক উপস্থিত হন। সভাপতি তার জ্ঞানগর্ভ আলোচনায় বলেন, আমরা এ প্রতিষ্ঠানটিকে বাগেরহাটের মধ্যে একটি অন্যতম প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তুলতে চাই। আর এ প্রত্যাশা পুরণে আপনাদের সহযোগিতা একান্তই কাম্য। পরিশেষে দোয়ার মাধ্যমে অনুষ্ঠান সমাপ্ত হয়।