ঢাকা , শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ৬ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ড. হাছান মাহমুদকে আমিরাতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর অভিনন্দন

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৫:৫৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৪
  • 26

অনলাইন ডেস্ক : পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবে নতুন দায়িত্ব গ্রহণ করায় ড. হাছান মাহমুদকে অভিনন্দন জানিয়েছেন সংযুক্ত আরব আমিরাতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী শেখ আবদুল্লাহ বিন জায়েদ আল নাহিয়ান।

সোমবার (২৯ জানুয়ারি) সংযুক্ত আরব আমিরাত দূতাবাসের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

ড. হাসান মাহমুদকে সম্বোধন করা এক চিঠিতে শেখ আবদুল্লাহ ১৯৭৪ সালে কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপনের পর থেকে সংযুক্ত আরব আমিরাত ও বাংলাদেশের সম্পর্কের ‘মসৃণ উন্নয়ন’ এর জন্য তার কৃতজ্ঞতা প্রকাশ এবং এই অগ্রগতি অর্জনে উভয় পক্ষের যৌথ প্রচেষ্টার কথা তুলে ধরেন।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ২০২৪ সালকে সংযুক্ত আরব আমিরাত-বাংলাদেশ কূটনৈতিক সম্পর্কের ৫০তম বার্ষিকী হিসেবে চিহ্নিত করেন। এছাড়াও বিদ্যমান শক্তিশালী দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ককে আরও জোরদার ও প্রসারিত করার প্রতিশ্রুতি পুনর্ব্যক্ত করেন। বিশেষকরে খাদ্য নিরাপত্তা এবং ভিসা পদ্ধতি সহজীকরণের ক্ষেত্রে সহযোগিতার নতুন উপায় খুঁজে বের করার ব্যাপারে গভীর আগ্রহ প্রকাশ করেন।

শেখ আবদুল্লাহ লিখেছেন, আমি বিদ্যমান সুসম্পর্ক আরও বাড়াতে ও উন্নত করতে আপনার সাথে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করতে প্রস্তুত। আমিরাতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী নতুন ভূমিকায় ড. মাহমুদের সাফল্য কামনা এবং বাংলাদেশের অব্যাহত সমৃদ্ধি ও কল্যাণের জন্য আন্তরিক শুভেচ্ছা জানিয়ে তার চিঠির সমাপ্তি টানেন।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

লোকসভা নির্বাচন-২০২৪ : ভোটের আগে বিজেপি ছেড়ে কংগ্রেসে যোগ দিলেন কর্ণাটকের সাবেক মন্ত্রী

ড. হাছান মাহমুদকে আমিরাতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর অভিনন্দন

আপডেট সময় ০৫:৫৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৪

অনলাইন ডেস্ক : পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবে নতুন দায়িত্ব গ্রহণ করায় ড. হাছান মাহমুদকে অভিনন্দন জানিয়েছেন সংযুক্ত আরব আমিরাতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী শেখ আবদুল্লাহ বিন জায়েদ আল নাহিয়ান।

সোমবার (২৯ জানুয়ারি) সংযুক্ত আরব আমিরাত দূতাবাসের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

ড. হাসান মাহমুদকে সম্বোধন করা এক চিঠিতে শেখ আবদুল্লাহ ১৯৭৪ সালে কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপনের পর থেকে সংযুক্ত আরব আমিরাত ও বাংলাদেশের সম্পর্কের ‘মসৃণ উন্নয়ন’ এর জন্য তার কৃতজ্ঞতা প্রকাশ এবং এই অগ্রগতি অর্জনে উভয় পক্ষের যৌথ প্রচেষ্টার কথা তুলে ধরেন।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ২০২৪ সালকে সংযুক্ত আরব আমিরাত-বাংলাদেশ কূটনৈতিক সম্পর্কের ৫০তম বার্ষিকী হিসেবে চিহ্নিত করেন। এছাড়াও বিদ্যমান শক্তিশালী দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ককে আরও জোরদার ও প্রসারিত করার প্রতিশ্রুতি পুনর্ব্যক্ত করেন। বিশেষকরে খাদ্য নিরাপত্তা এবং ভিসা পদ্ধতি সহজীকরণের ক্ষেত্রে সহযোগিতার নতুন উপায় খুঁজে বের করার ব্যাপারে গভীর আগ্রহ প্রকাশ করেন।

শেখ আবদুল্লাহ লিখেছেন, আমি বিদ্যমান সুসম্পর্ক আরও বাড়াতে ও উন্নত করতে আপনার সাথে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করতে প্রস্তুত। আমিরাতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী নতুন ভূমিকায় ড. মাহমুদের সাফল্য কামনা এবং বাংলাদেশের অব্যাহত সমৃদ্ধি ও কল্যাণের জন্য আন্তরিক শুভেচ্ছা জানিয়ে তার চিঠির সমাপ্তি টানেন।