ঢাকা , শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন : মন্ত্রীরা চিকিৎসার জন্য বিদেশ গেলেও বেগম জিয়াকে যেতে দিচ্ছে না

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০২:৫৯ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩
  • 121

অনলাইন ডস্কে : বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, সরকারের মন্ত্রীরা বারবার বিদেশে গিয়ে চিকিৎসা নিচ্ছেন অথচ বেগম জিয়াকে বিদেশ যেতে দিচ্ছে না। তিনি বলেন, বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া শারীরিকভাবে গুরুতর অসুস্থ। তার উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে যাওয়া একান্ত প্রয়োজন। কিন্তু সরকার তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশ যেতে দিচ্ছে না। শনিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) সকালে  তারুণ্যের রোডমার্চ কর্মসূচির উদ্বোধন অনুষ্ঠানে আয়োজিত পথসভায় তিনি এ কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল ইসলাম বলেন, বিগত ২০১৪ ও ২০১৮ সালের নির্বাচনে  দেশের মানুষ ভোট দিতে পারেনি। আওয়ামী লীগ জনগণের সঙ্গে প্রতারণা করেছে। নির্বাচন হলে জনগণ ভোট দিতে পারে না, ভোট চুরি হয়ে যায়। সেই সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব না। এ জন্য আমরা দাবি তুলেছি নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন হতে হবে। এ দাবি শুধু আমাদের নয় সকল রাজনৈতিক দলের।

দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান প্রসঙ্গে তিনি বলেন, সরকার মিথ্যা মামলা দিয়ে তাকে অযথা হয়রানি করছে। আমরা আন্দোলন করে সরকারকে সরিয়ে দিয়ে জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠা করতে পারলে তারেক রহমান দেশে ফিরে আসবেন। তিনি দৃঢতার সাথে বলেন, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন হলে পরবর্তী সময় আন্দোলনকারী দলগুলোকে নিয়ে জাতীয় সরকার গঠন করা হবে। নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন এবং নতুন করে নির্বাচন কমিশন গঠনের দাবি জানিয়ে ফখরুল বলেন, ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠার দাবিতে সারাদেশের তরুণ সমাজ জেগে উঠেছে। সরকারের পতন না ঘটিয়ে আমরা ঘরে ফিরবো না।

সরকার পতনের এক দফা দাবিতে রংপুর-দিনাজপুর তারুণ্যের রোডমার্চ কর্মসূচি রংপুর নগরীর গ্র্যান্ড হোটেল মোড়ের দলীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে শুরু হয়। সকাল ১০টায় জাসাস শিল্পীদের পরিবেশনায় দলীয় সংগীতের মধ্য দিয়ে কর্মসূচির প্রথম পর্ব শুরু হয়। তারুণ্যের রোডমার্চ রংপুর থেকে শুরু হয়ে দিনাজপুর পৌঁছাবে।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় রেমাল : সতর্কতায় উপকূলে মাইকিং করেছে কোস্ট গার্ডের সদস্যরা

ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন : মন্ত্রীরা চিকিৎসার জন্য বিদেশ গেলেও বেগম জিয়াকে যেতে দিচ্ছে না

আপডেট সময় ০২:৫৯ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩

অনলাইন ডস্কে : বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, সরকারের মন্ত্রীরা বারবার বিদেশে গিয়ে চিকিৎসা নিচ্ছেন অথচ বেগম জিয়াকে বিদেশ যেতে দিচ্ছে না। তিনি বলেন, বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া শারীরিকভাবে গুরুতর অসুস্থ। তার উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে যাওয়া একান্ত প্রয়োজন। কিন্তু সরকার তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশ যেতে দিচ্ছে না। শনিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) সকালে  তারুণ্যের রোডমার্চ কর্মসূচির উদ্বোধন অনুষ্ঠানে আয়োজিত পথসভায় তিনি এ কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল ইসলাম বলেন, বিগত ২০১৪ ও ২০১৮ সালের নির্বাচনে  দেশের মানুষ ভোট দিতে পারেনি। আওয়ামী লীগ জনগণের সঙ্গে প্রতারণা করেছে। নির্বাচন হলে জনগণ ভোট দিতে পারে না, ভোট চুরি হয়ে যায়। সেই সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব না। এ জন্য আমরা দাবি তুলেছি নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন হতে হবে। এ দাবি শুধু আমাদের নয় সকল রাজনৈতিক দলের।

দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান প্রসঙ্গে তিনি বলেন, সরকার মিথ্যা মামলা দিয়ে তাকে অযথা হয়রানি করছে। আমরা আন্দোলন করে সরকারকে সরিয়ে দিয়ে জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠা করতে পারলে তারেক রহমান দেশে ফিরে আসবেন। তিনি দৃঢতার সাথে বলেন, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন হলে পরবর্তী সময় আন্দোলনকারী দলগুলোকে নিয়ে জাতীয় সরকার গঠন করা হবে। নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন এবং নতুন করে নির্বাচন কমিশন গঠনের দাবি জানিয়ে ফখরুল বলেন, ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠার দাবিতে সারাদেশের তরুণ সমাজ জেগে উঠেছে। সরকারের পতন না ঘটিয়ে আমরা ঘরে ফিরবো না।

সরকার পতনের এক দফা দাবিতে রংপুর-দিনাজপুর তারুণ্যের রোডমার্চ কর্মসূচি রংপুর নগরীর গ্র্যান্ড হোটেল মোড়ের দলীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে শুরু হয়। সকাল ১০টায় জাসাস শিল্পীদের পরিবেশনায় দলীয় সংগীতের মধ্য দিয়ে কর্মসূচির প্রথম পর্ব শুরু হয়। তারুণ্যের রোডমার্চ রংপুর থেকে শুরু হয়ে দিনাজপুর পৌঁছাবে।