ঢাকা , বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নির্বাচনে খুলনা মহানগরীতে সর্বমোট ৩১০ টি কেন্দ্রে ভোট অনুষ্ঠিত হবে : কেএমপিতে তিন হাজার পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে কমিশনার

  • ডেস্ক :
  • আপডেট সময় ০৭:০৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৫ জানুয়ারী ২০২৪
  • 63

খুলনা থেকে আরিফুল ইসলাম মিলন : খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশ (কেএমপি) কমিশনার মোজাম্মেল হক বলেছেন, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে খুলনায় কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিশ্চিত করেছে পুলিশ। এজন্য খুলনা মেট্রোপলিটনে পুলিশের প্রায় তিন হাজার সদস্য নির্বাচনের পূর্বে ও পরবর্তীতে দায়িত্ব পালন করবেন। শুক্রবার (৫ জানুয়ারি) সকাল ১১ টায় খুলনা সদর থানায় আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন। খুলনা মহানগরীতে সর্বমোট ৩১০ টি কেন্দ্রে ভোট অনুষ্ঠিত হবে। কমিশনার মোজাম্মেল হক বলেন, জনগণের ভোটাধিকার প্রয়োগের সমান সুযোগ থাকবে, এটি পুলিশ নিশ্চিত করবে। নির্বাচনকে যারা বাধাগ্রস্ত করার চেষ্টা করবে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

কেএমপি কমিশনার বলেন, কতিপয় বিরোধীদল নির্বাচন উপলক্ষে ৬ জানুয়ারি ভোর ৬টা থেকে ৮ জানুয়ারি ভোর ৬টা পর্যন্ত টানা ৪৮ ঘণ্টার হরতাল ডেকেছে। আমরা দ্ব্যর্থহীন কণ্ঠে বলতে চাই, অন্যান্য দিনের মতই নির্বাচনের দিন পরিস্থিতি সম্পূর্ণ স্বাভাবিক থাকবে। তিনি আরও বলেন, খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের আওতাধীন এলাকায় লোকজন উৎসব মুখর পরিবেশে ভোট দান করবে। কোথাও কোনো প্রতিবন্ধকতা থাকবে না। যদি কেউ বাধা সৃষ্টি করতে চায় তাহলে আমরা তাদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক আইনগত ব্যবস্থা নিবো।

কেএমপি কমিশনার জানান, খুলনা মহানগরীতে সর্বমোট ৩১০ টি কেন্দ্রে ভোট অনুষ্ঠিত হবে। কেন্দ্রগুলোতে পর্যাপ্ত সংখ্যক সশস্ত্র পুলিশ, আনসারের পাশাপাশি উল্লেখযোগ্য পরিমাণ সেনাবাহিনী, বিজিবি ও র্যাব মোতায়েন থাকবে। অন্যান্য সকল সংস্থার সাথে সমন্বয় সাধনের মাধ্যমে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তার চাদরে মেট্রোপলিটন এলাকায় উৎসব মুখর পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচনের পূর্বে হরতাল-অবরোধেও সার্বিক পরিস্থিতি স্বাভাবিক থাকবে।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন : অপরাধী হলে আজিজ-বেনজীরের বিচার হবে

নির্বাচনে খুলনা মহানগরীতে সর্বমোট ৩১০ টি কেন্দ্রে ভোট অনুষ্ঠিত হবে : কেএমপিতে তিন হাজার পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে কমিশনার

আপডেট সময় ০৭:০৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৫ জানুয়ারী ২০২৪

খুলনা থেকে আরিফুল ইসলাম মিলন : খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশ (কেএমপি) কমিশনার মোজাম্মেল হক বলেছেন, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে খুলনায় কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিশ্চিত করেছে পুলিশ। এজন্য খুলনা মেট্রোপলিটনে পুলিশের প্রায় তিন হাজার সদস্য নির্বাচনের পূর্বে ও পরবর্তীতে দায়িত্ব পালন করবেন। শুক্রবার (৫ জানুয়ারি) সকাল ১১ টায় খুলনা সদর থানায় আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন। খুলনা মহানগরীতে সর্বমোট ৩১০ টি কেন্দ্রে ভোট অনুষ্ঠিত হবে। কমিশনার মোজাম্মেল হক বলেন, জনগণের ভোটাধিকার প্রয়োগের সমান সুযোগ থাকবে, এটি পুলিশ নিশ্চিত করবে। নির্বাচনকে যারা বাধাগ্রস্ত করার চেষ্টা করবে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

কেএমপি কমিশনার বলেন, কতিপয় বিরোধীদল নির্বাচন উপলক্ষে ৬ জানুয়ারি ভোর ৬টা থেকে ৮ জানুয়ারি ভোর ৬টা পর্যন্ত টানা ৪৮ ঘণ্টার হরতাল ডেকেছে। আমরা দ্ব্যর্থহীন কণ্ঠে বলতে চাই, অন্যান্য দিনের মতই নির্বাচনের দিন পরিস্থিতি সম্পূর্ণ স্বাভাবিক থাকবে। তিনি আরও বলেন, খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের আওতাধীন এলাকায় লোকজন উৎসব মুখর পরিবেশে ভোট দান করবে। কোথাও কোনো প্রতিবন্ধকতা থাকবে না। যদি কেউ বাধা সৃষ্টি করতে চায় তাহলে আমরা তাদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক আইনগত ব্যবস্থা নিবো।

কেএমপি কমিশনার জানান, খুলনা মহানগরীতে সর্বমোট ৩১০ টি কেন্দ্রে ভোট অনুষ্ঠিত হবে। কেন্দ্রগুলোতে পর্যাপ্ত সংখ্যক সশস্ত্র পুলিশ, আনসারের পাশাপাশি উল্লেখযোগ্য পরিমাণ সেনাবাহিনী, বিজিবি ও র্যাব মোতায়েন থাকবে। অন্যান্য সকল সংস্থার সাথে সমন্বয় সাধনের মাধ্যমে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তার চাদরে মেট্রোপলিটন এলাকায় উৎসব মুখর পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচনের পূর্বে হরতাল-অবরোধেও সার্বিক পরিস্থিতি স্বাভাবিক থাকবে।